২৬শে এপ্রিল, ২০১৮ ইং, ১৩ই বৈশাখ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১০ই শাবান, ১৪৩৯ হিজরী

এক নজরে দেখে নিনঃ ২০১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপে যে ১০ দল চূড়ান্ত হল

মার্চ ২৪, ২০১৮, সময় ৪:৩৯ পূর্বাহ্ণ

ঠিক হয়ে গেল ২০১৯ আইসিসি বিশ্বকাপে কোন ১০টি দেশ খেলতে চলেছে তা ঠিক হয়ে গেল। জিম্বাবোয়েতে আয়োজিত দশটি দেশকে নিয়ে কোয়ালিফিয়ার টুর্নামেন্ট থেকে দুটি দেশ ২০১৯ ইংল্যান্ডে হতে চলা বিশ্বকাপে যোগ্যতা পেল। এর আগেই আইসিসি ওয়ানডে Ranking-এ প্রথম আটটি স্থানে থাকা দেশ বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা পেয়েছে। আগামী বছর ৩০ জুন থেকে ১৪ জুলাই ইংল্যান্ড ও ওয়েলশে হবে আইসিসি বিশ্বকাপ।

দেখে নিন কোন দশটি দেশ ২০১৯ বিশ্বকাপে খেলবে–

১) ভারত
বিরাট কোহলির নেতৃত্ব ফেভারিট হিসেবে নামবে ভারত। ব্যাটিং-বোলিং দুই বিভাগে শক্তিশালী দেশ। ১৯ বিশ্বকাপে কোহলি-ধোনি-রোহিত-বুমরা-ভুবিরা চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্যে নামবেন। ৮ বছর পর ফের বিশ্বকাপ জয়ের হাতছানি কোহলিদের সামনে।

২) দক্ষিণ আফ্রিকা
ফাফ দু প্লেসিসের নেতৃত্বেই নামার কথা। দল দারুণ কিন্তু বিশ্বকাপে বরবার চোক করে।

৩) ইংল্যান্ড
ওয়ানডে ফরম্যাটে একেবারে ইতিহাস ভাল নয়। একবারও বিশ্বকাপ জেতেনি। তবে এবার রুট-স্টোকস-হেলস-বেয়ারস্টোদগের মত ক্রিকেটাররা থাকায় আশা রয়েছে। ওয়ানডে ক্রিকেটে ইংল্যান্ড এখন দারুণ খেলছে। তার ওপর আবার নিজেদের দেশের মাটিতে বিশ্বকাপ।

৪) নিউজিল্যান্ড

কেন উইলিয়ামসনের নেতৃত্বে এক ঝাঁক প্রতিশ্রুতিবান ক্রিকেটারদের নিয়ে নামতে চলা নিউজিল্যান্ড আন্ডারডগ হিসেবে নামবে। গুপ্তিল, উইলিয়ামসন, টেলর, বোল্ট, সাউদিরা ইংল্যান্ডে দারুণ কিছু করতে পারেন।

৫) অস্ট্রেলিয়া

গতবারের চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া ওয়ানডে-তে মোটেও ভাল ফর্মে নেই। আইসিসি ক্রম তালিকায় তারা প্রথম চারে নেই। তবে বিশ্বকাপ হল অজিদের কাছে এমন একটা টুর্নামেন্ট যেখানে তারা বরাবর জ্বলে ওঠে। গত পাঁচটা বিশ্বকাপের ৪টিতে চ্যাম্পিয়ন, আর গত ৬টা বিশ্বকাপের ৫টাতে অন্তত ফাইনালে খেলা অস্ট্রেলিয়ার দল কিন্তু বেশ ভাল

৬) পাকিস্তান

সরফরাজ আহমেদর দল যে আহামরি তা নয়। ফর্মেও যে তারা দারুণভাবে আছে তা নয়। তবে গত বছর চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি বা মিনি বিশ্বকাপে এই ইংল্যান্ডেই যে খেলাটা খেলে পাকিস্তান ফাইনালে ভারতকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল তার জন্য কোনও প্রশংসায় যথেষ্ট নয়। ১৯৯২ সালের পর ২৬ বছর পর বিশ্বকাপ জিততে নামবে পাকিস্তান।

৭) বাংলাদেশ

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডে আয়োজিত গত বিশ্বকাপে বাংলাদেশ রূপকথার মত ক্রিকেট খেলেছিল। ইংল্যান্ডকে হারিয়ে বাংলাদেশ কোয়ার্টার ফাইনালে উঠেছিল। তারপর থেকে বিশ্ব ক্রিকেটে বিশেষ করে ওয়ানডে-তে বাংলাদেশ নিজেদের স্থান মজুবত করেছে। এবার তারা সরাসরি বিশ্বকাপে খেলছে।

৮) শ্রীলঙ্কা

একেবারে ভাঙাচোরা দল। শ্রীলঙ্কা কোনওরকমে কোয়ালিফাই পর্ব এড়াতে পেরেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ খারাপ খেলায়।

৯) ওয়েস্ট ইন্ডিজ

প্রথম দুটি বিশ্বকাপ জয়ী দল ওয়েস্ট ইন্ডিজ আইসিসি ওয়ানডে ranking-এ প্রথম আটটা দলের মধ্যে না থাকায় কোয়ালিফায়ারে খেলতে হয়েছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজকে। আফগানদের কাছে হারলেও কোনরকমে জিতে বিশ্বকাপের টিকিট পায় ক্যারিবিয়ানরা। স্কটল্যান্ডকে ৫ রানে হারিয়ে বিশ্বকাপের টিকিট কাটল উইন্ডিজরা। সহজ এক সমীকরণ নিয়ে মাঠে নেমেছিল দুই দল, জিতলেই বিশ্বকাপ।

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে আগের ম্যাচেও সেই সুযোগ ছিল স্কটল্যান্ডের। কিন্তু সেই ম্যাচ হেরে বসায় আজ ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আরও একবার পরীক্ষায় নামতে হয়েছিল স্কটিশদের। ম্যাচের প্রথমার্ধে ভালোই করেছিল তারা। ২ রান তুলতেই ২ উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তবে সে চাপ সামলে নিয়েছিল উইন্ডিজ। এভিন লুইস (৬৬) ও ফর্মে ফেরা মারলন স্যামুয়েলসের (৫১)—দুটি ফিফটিতে ৫ উইকেটে ১৫৮ রান তুলে ফেলেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

শেষ ১০ ওভারে পথ হারায় ক্যারিবীয়দের ইনিংস। ৪০ রানে শেষ ৫ উইকেট হারিয়ে ১৯৮ রানে অলআউট হয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। স্কটিশ দুই পেসার শাফায়ান শরিফ ও ব্র্যাড হুইল—দুজনই ৩ উইকেট পেয়েছেন। রান তাড়ার শুরুটা খুবই বাজে হয়েছে স্কটল্যান্ডের।

তৃতীয় ওভারেই ব্যাটিংয়ের মূল ভরসা কোয়েতজার ফিরে গেছেন। কেমার রোচ (২০/২) ও জ্যাসন হোল্ডারের তোপে ২৫ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে স্কটল্যান্ড। চাপে পড়ে রান তোলার গতিটা কখনোই তুলতে পারেনি দলটি। অ্যাশলি নার্সের বলে মিডল অর্ডারের দুই ব্যাটসম্যানের ফেরাটাই ম্যাচের ভাগ্য লিখে দিল। ১০৫ রানে ৫ম উইকেট হারায় স্কটল্যান্ড।

১০) আফগানিস্তান

আইসিসি বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে শুক্রবার সুপার সিক্স পর্বের শেষ ম্যাচে আয়ারল্যান্ডকে পাঁচ উইকেটে হারিয়েছে আফগানিস্তান। এই জয়ের ফলে ২০১৯ সালের আইসিসি বিশ্বকাপে জায়গা করে নিলো তারা। আফগানিস্তানের এটি হবে দ্বিতীয় বিশ্বকাপ। ২০১৫ সালের আইসিসি বিশ্বকাপে প্রথবারের মতো অংশ নিয়েছিল আফগানিস্তান।

বাছাইপর্ব থেকে এর আগে বিশ্বকাপে উঠেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। হারারো স্পোর্টস ক্লাবে অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে আজ আয়ারল্যান্ডের দেয়া ২১০ রানের জয়ের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে ৪৯.১ ওভারে পাঁচ উইকেট হারিয়ে জয় তুলে নেয় আফগানিস্তান। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৪ রান করেন মোহাম্মদ শাহজাদ।

৪৫ রান করেন গুলবদিন নাইব। ৩৯ রান করে অপরাজিত থাকেন অধিনায়ক আসঘার স্টানিকজাই। আয়ারল্যান্ডের পক্ষে সিমি সিং ৩টি, ব্যারি ম্যাকার্থি ১টি ও বয়েড র‌্যানকিন ১টি করে উইকেট নেন। এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভারে সাত উইকেট হারিয়ে ২০৯ রান সংগ্রহ করে আয়ারল্যান্ড। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৫ রান করেন পল স্টার্লিং।

দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৪১ রান করেন কেভিন ও’ব্রাইন। ৩৬ রান করেন নিয়াল ও’ব্রাইন। আফগানিস্তানের পক্ষে রশীদ খান ৩টি, দৌলৎ জাদরান ২টি ও মোহাম্মদ নবী ১টি করে উইকেট নেন। ২০১৯ সালে ইংল্যান্ড ও ওয়েলসে অনুষ্ঠিত হবে আইসিসি বিশ্বকাপের ১২তম আসর।

ওই আসরে মোট দশটি দল অংশ নিবে। এই দশটি দলের মধ্যে র‌্যাঙ্কিংয়ের ভিত্তিতে আগেই সাতটি দল নির্ধারণ হয়ে গেছে। সাতটি দলের মধ্যে বাংলাদেশ রয়েছে। আর স্বাগতিক হিসাবে অংশ নিবে ইংল্যান্ড। বাকি দুইটি দল আইসিসি বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের মাধ্যমে নির্ধারিত হলো।